টার্গেট’স টপার

Target Topper

টার্গেট’স টপার হল ছাত্রছাত্রীদের পড়াশোনায় উৎসাহ দিতে টার্গেট বাংলা আয়োজিত একটি প্রতিযোগীতা। প্রতি মাসে তিনটি ধাপে তিনটি পরীক্ষা নেওয়া হয়। সর্বাধিক নম্বর যিনি পান তিনিই হন টার্গেট এস এস সি বাংলার সেরা ছাত্র বা ছাত্রী। তিনি ‘টার্গেট’- এর ‘টপার’ বলে বিবেচিত হন।

নীচে বিগত টার্গেট’স টপার প্রতিযোগিতায় প্রথম স্থানাধীকারিদের নাম প্রকাশ করা হল –

ক্রমিক নং মাসের নাম ছাত্র/ছাত্রীর নাম ঠিকানা
0১ July 2016 শম্পা দাসপাল নিউ দিল্লী
0২ July 2016 কোয়েল নন্দী দাঁতন
০৩ আগষ্ট ২০১৬ প্রসূন নিয়োগী বারাসত
০৪ সেপ্টেম্বর ২০১৬
০৪ অক্টোবর ২০১৬
০৫ নভেম্বর ২০১৬
০৬ ডিসেম্বর ২০১৬

মূলত তিনটি ধাপে হয় এই প্রতিযোগিতার পরীক্ষা। প্রথমে বিষয়ভিত্তিক একটি  অনলাইন এক্সাম হয়। প্রাপ্ত নম্বরের ভিত্তিতে সেরা ১৫ বেছে নেওয়া হয়। দ্বিতীয় ধাপে ঐ ১৫ জনের আর একটি এক্সাম হয় যা মূলত গ্রুপ এক্টিভিটিস টেষ্ট নামে পরিচিত। প্রাপ্ত নম্বর যোগ করা হয় প্রথম ধাপের পরীক্ষায় প্রাপ্ত নম্বরের সঙ্গে। সেরা নম্বরের ভিত্তিতে ঐ ১৫ জনের মধ্যে বেছে নেওয়া হয় ১০ জনকে। এবার তৃতীয় ধাপে ঐ ১০ জনের একটি অনলাইন ইণ্টারভিউ নেওয়া হয়। ইন্টারভিউ হবে সাবজেক্ট, মেন্টাল এবিলিটি ,চাইল্ড সাইকোলজি বিষয়ে।  প্রাপ্ত নম্বর যুক্ত হয় আগের দুটি পরীক্ষায় প্রাপ্ত নম্বরের সঙ্গে। এরপর বেছে নেওয়া হয় সেরা নম্বরটি।
নম্বর বিভাজনঃ প্রথম ধাপ বিষয়ভিত্তিক অনলাইন এক্সাম – ৩৫ + দ্বিতীয় ধাপ গ্রুপ এক্টিভিটিজ টেস্ট – ১০ + তৃতীয় ধাপ ইন্টারভিউ – ৫ = ৫০।

শর্তাবলী:

[১] অনলাইন এক্সাম দিতে পারবেন মাত্র ১ বার। ১ বারের বেশি চেষ্টা করলে তাকে বাতিল করে দেওয়া হবে।

[২] আপনার ডিভাইস সমস্যা বা নেট সমস্যার জন্য টার্গেট বাংলা দায়বদ্ধ থাকবে না।

[৩] গ্রুপের পরিচালক মন্ডলী প্রথম পর্যায়ের পরীক্ষায় অংশ নিলেও সেরা ১৫য় আসতে পারবেন না।

[৪] অনলাইন এক্সাম দেবার সময় নিজের পুরো নাম ইংরেজীতে লিখবেন। অন্যথায় তিনি প্রথমেই বাতিল হবেন।

[৫] ইন্টারভিউ তে আমন্ত্রিত হলে নির্দিষ্ট সময়ে প্রতিযোগীকে উপস্থিত থাকতেই হবে।

[৬] প্রতিযোগিতায় আপনার ফেসবুক প্রোফাইলের নামই আপনাকে ব্যবহার করতে হবে।

[৭] কোনরকম বেনামী প্রোফাইল (যেমন ‘আকাশের সাতিটি তারা’ ‘প্রথম কদম ফুল’ ইত্যাদি) প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করলেও সেরা ১৫ য় আসতে পারবেন না।

টার্গেট’স টপার কে একটি বিশেষ পুরষ্কার তার বাড়ির ঠিকানায় পাঠিয়ে দেওয়া হয়, সাধারণত অনলাইন শপিং  যেমন ফ্লিপকার্ট, স্ন্যাপডিল, আমাজনের মাধ্যমে যার সমস্ত খরচ বহন করি আমরা।

সর্বশেষ সংশোধিত: ৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৬।

কপিরাইট © 2017 টার্গেট বাংলা। সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত।